Sharing is caring!

Chapai-1Chapai-2Chapai-3Chapai-4চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি \ টানা এক মাস রোযা রাখার পর বৃহস্পতিবার আনন্দঘন পরিবেশে ও ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্যে দিয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জে পবিত্র ঈদ-উল-ফিতর’১৬ পালিত হয়েছে। তবে জেলার কোথাও কোথাও বৃষ্টিতে ভিজেও ঈদের নামাজ আদায় করেছের ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা। অনেক জায়গায় রোদ্রজ্জল থাকায় বৃহস্পতিবার সকালে ঈদগাহে মানুষের ঢল নামে এবং শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ঈদের জামায়াত অনুষ্ঠিত হয়। জেলার বেশীরভাগ ঈদ জামাত সাড়ে ৮ টায় অনুষ্টিত হয়। কিছু জামায়াত আবার ৮ টায় বা ৯টায় অনুষ্ঠিত হয়। জেলার সংসদ সদস্যগণ নিজ নিজ নির্বাচনী এলাকায় ঈদের নামাজ আদায় করেন। জেলার প্রধান ঈদ জামায়াত জেলা শহরের ফকিরপাড়া-নিমতলা কেন্দ্রীয় ঈদগাহে অনুষ্ঠিত হয়। মাওলানা মাহবুবের ইমামতিতে এই জামায়াতে শরীক হন জেলা প্রশাসক মোঃ জাহিদুল ইসলামসহ সরকারী ও বেসরকারী গুরুত্ত¡পূর্ন ব্যক্তিবর্গ এবং বিপুল সংখ্যক সাধারণ মানুষ। জেলার সবচেয়ে বড় ঈদ জামাত সদর উপজেলার মহারাজপুর ঈদগাহে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয় সকাল ৯টায়। ঈদের জামাত শুরুর পুর্বেই শুরু হয় মুসলধারে বৃষ্টি। বৃষ্টিতে ভিজে প্রায় ৭ হাজার মানুষ ঈদের নামাজ আদায় করে। মহারাজপুর ঈদগাহে জামাতে নামাজ আদায় করেন সাপ্তাহিক সোনামসজিদের সম্পাদক ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মোহাঃ জোনাব আলী, ‘দৈনিক চাঁপাই দর্পণ’ এর সম্পাদক আশরাফুল ইসলাম রঞ্জুসহ মহারাজপুর ঈদগাহ কমিটির সদস্যগণ ও সাধারণ মানুষ। এবছর মহারাজপুর ইউনিয়ন থেকে ২০ জন পবিত্র হজ্বব্রত পালন করতে যাবেন বলে জানানো হয় ঈদগাহে। চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা থেকে প্রকাশিত সকল পত্রিকার সম্পাদকগণ নিজ নিজ এলাকায় ঈদের নামাজ আদায় করেছেন। নামাজ শেষে দেশ ও জাতির শান্তির জন্য আল্লাহর রহমত কামনা করে দোয়া করা হয়। এরপর নিকটা ত্মীয়দের কবর জিয়ারত করেন মুসল্লীরা। ঈদ উপলক্ষে শহরের সড়কগুলি জাতীয় ও নানা রঙ্গের পতাকা ও ফেষ্টুনে সাজানো হয়েছে। আলোক সজ্জিত করা হয়েছে সড়ক ও গুরুত্ত¡পূর্ন ভবনগুলি। ঈদ উপলক্ষে নিরাপত্ত¡া ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে বলে জানান, সদর থানর অফিসার ইনচার্জ মাজহারুল ইসলাম। জেলার কোথাও কোন অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *