Sharing is caring!

SAM_4817 SAM_4819চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি \ জেলা রেজিষ্ট্রারের নির্দেশে জৈষ্ঠ্যতার বিধিমালা লক্সঘন করে দিলরুবা বেগমকে টাইপিষ্ট কাম মুদ্রাক্ষরিক নিম্নমান সহকারী পদে পেষনে বদলী বাতিলের দাবীতে মানববন্ধন করেছে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার রেজিষ্ট্রি অফিসের নকল নবীশরা। বুধবার দুপুরে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা রেজিষ্ট্রারের অফিস চত্বরে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। ঘন্টাবাপী চলা মানববন্ধনে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ এক্সট্রা মহরার (নকল নবীশ) এ্যাসোসিয়েশন চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা শাখার সভাপতি আব্দুর রহিম, সাধারণ সম্পাদক মীর এমরান আলী, সহ সভাপতি মোঃ আলাউদ্দিন ও বদিউজ্জামান, সাংগঠনিক সম্পাদক আবু বাক্কার, গোমস্তাপুর থানা সভাপতি মাইনুল ইসলাম, সদস্য সেলিম রেজা, শরিফুল ইসলামসহ অন্যরা। বক্তারা বলেন, অফিসের নিয়োগ বিধিমালার ৩১০ ধারা মোতাবেক জৈষ্ঠ্যতার ভিত্তিতে টিসি/মহরার পদে পদন্নতি পেয়ে থাকে নকল নবিশরা। কিন্তু বিধিমালা লংঘন করে দিলরুবা বেগমকে নাচোল সাবরেজিষ্ট্রি অফিসে নিয়োগ দেয়া হয়েছে। অবৈধভাবে দেয়া দিলরুবার নিয়োগ বাতিলের জোর দাবি জানান বক্তারা। এব্যাপারে জেলা রেজিষ্ট্রারের কাছে নিয়োগ বাতিলের জন্য লিখিত প্রতিবাদলিপি জমা দেয়া হয় এ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে। বাংলাদেশ এক্সট্রা মহরার (নকল নবীশ) এ্যাসোসিয়েশন চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা শাখার সভাপতি আব্দুর রহিম জানান, জেলা রেজিষ্ট্রার অফিসে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে একজন কাম মুদ্রাক্ষরিক (টাইপিষ্ট) নিয়োগ দেয়া হয়। ২০০৪ সালে দিলরুবা বেগমকে মুদ্রাক্ষরিক পদে নিয়োগ দেয়া হয়। বিধি মোতাবেক কোন মুদ্রাক্ষরিক পদোন্নতি পেয়ে জেলা রেজিষ্ট্রারের প্রধান সহকারী পদে পদোন্নতি পাবেন। কিন্তু পদোন্নতি বিধি লংঘন করে জেলা রেজিষ্ট্রারের প্রধান সহকারী পদে নিয়োগ না দিয়ে নাচোল সাবরেজিষ্ট্রী অফিসে পেষনে নি¤œমান সহকারী পদে নিয়োগ দেয়া হয়েছে দিলরুবা বেগমকে। যা বিধিমালার রিতিমতো লংঘন। এঘটনায় জেলার নকল নবীশদের মধ্যে চাপা উত্তেজনা বিরাজ করছে।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *