Sharing is caring!

চাঁপাইনবাবগঞ্জে শিক্ষক ও কর্মচারি

কল্যান সমিতির বার্ষিক সাধারণ সভা

♦ স্টাফ রিপোর্টার

চাঁপাইনবাবগঞ্জ শিক্ষক ও কর্মচারি কল্যান সমিতির বার্ষিক সাধারণ সভা হয়েছে। বৃহষ্পতিবার সকালে শহরের ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নবাবগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয় (টাউন হাই স্কুল) মাঠে এই সভা হয়। শিক্ষক ও কর্মচারি কল্যান সমিতি চাঁপাইনবাবগঞ্জের সভাপতি ও নবাবগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. হাসিনুর রহমানের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মমতাজ বেগম, চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মো. তৌফিকুল ইসলাম, আমনুরা আদর্শ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. কুদরত-ই-খুদা, সাধারণ সম্পাদক ও আজাইপুর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. শফিকুল ইসলাম, গোদাগাড়ী শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ও রাজাবাড়ীহাট উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. কামরুজ্জামান, সমিতির সহ-সাধারণ সম্পাদক ও হরিপুর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নাসির আকতার পলাশ, সাবেক সম্পাদক মো. মঈনউদ্দিন ও মো. শফিকুল ইসলাম এবং সাবেক সভাপতি ও রাজরামপুর হামিদুল্লাহ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. শাহ্আলম, কামাল উদ্দিন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক খালেদা বেগম কাকলী। উপস্থিত ছিলেন, জেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মো. আব্দুল লতিব, সহকারী জেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মো. সাইফুল মালেক, বিদ্যালয় পরিদর্শকবৃন্দ, হরিমোহন সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক (ভারপ্রাপ্ত) তরিকুল ইসলাম, নবাবগঞ্জ সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. মোকসেদ আলী, সমিতির কোষাধ্যক্ষ ও নামোরাজরামপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক মো. আব্দুল বারী, দপ্তর সম্পাদক মো. আনোয়ারুল ইসলাম, পরীক্ষা সম্পাদক মো. সাইফুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক ও মহাডাঙ্গা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. আজিজুর রহমানসহ সমিতির বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ ও সাধারণ সদস্যগণ। সভায় সমিতির বার্ষিক আয়-ব্যয় ও দুপুরে প্রীতিভোজ হয়। শেষে সমিতির সদস্য ৪জনকে অবসর সুবিধা হিসেবে আর্থিক সহায়তা দেয়া হয়। এর মধ্যে রামজীবনপুর আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রয়াত প্রধান শিক্ষক তারিকুল ইসলাম তারেকের সহধর্মীনির হাতে ২ লক্ষ ১০ হাজার টাকা, নবাবগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক খাইরুল ইসলাম, কারবালা স্কুল এন্ড কলেজের একজন কর্মচারী ও টিকরামপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের একজন কর্মচারীকে আর্থিক সুবিধার চেক প্রদান করা হয়। দুপুরে ভোজ শেষে সংক্ষিপ্ত মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে গান পরিবেশন করেন শিক্ষকরা। 

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *