Sharing is caring!

স্টাফ রিপোর্টার \ চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার প্রধান অর্থকরী ফসল আম উৎপাদন ও বাজারজাতকরণ বিষয়ে সিডিএআইএস এর আয়োজনে আম বিষয়ক উদ্বোধনী কর্মশালা (ম্যাংগো ইনেগুর‌্যাল ওয়ার্কসপ) হয়েছে চাঁপাইনবাবগঞ্জে। বুধবার সকালে ‘চাঁপাই ফুড ক্লাব’ অডিটোরিয়ামে প্রধান অতিথি হিসেবে এই কর্মশালার উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক মাহমুদুল হাসান। প্রধান আলোচক ছিলেন বাংলাদেশ এ্যাসোসিয়েশন ফর এগ্রো প্রসেসর্স (বাফা)’র প্রেসিডেন্ট মোঃ ফকরুল ইসলাম। ক্যাপাসিটি ডেভেলপমেন্ট ফর এগ্রিকালচার ইনোভেশান সিসটেম (সিডিএআইএস) এর আয়োজনে আধুনিক পদ্ধতিতে আম উৎপাদন করে বাজারজাত করণের মাধ্যমে আমের ক্ষয়ক্ষতি নিয়ন্ত্রণ করে আরও বেশী বেশী আয় ও করণীয় বিষয়ে আলোচনা করেন সিডিএআইএস’র লীড নিফ রোজানা ওহাব। আম উৎপাদন ও করণীয় বিষয়ে বক্তব্য রাখেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ আঞ্চলিক উদ্যানতত্ব গবেষণা কেন্দ্রের উর্ধ্বতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. মোঃ শরফ উদ্দিন, কৃষি সম্প্রসারণ অদিদপ্তরের উপ-পরিচালক মোঃ মঞ্জুরুল হুদা, চাঁপাইনবাবগঞ্জ আঞ্চলিক উদ্যানতত্ব গবেষণা কেন্দ্রের প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. মোঃ শফিকুল ইসলামসহ অন্যরা। কর্মশালায় চাঁপাই এগ্রো ইন্ড্রাষ্ট্রিজ এর পরিচালক মোসাঃ জেসমিন বেগম, চাঁপাইনবাবগঞ্জ চেম্বারের সহ-সভাপতি আলহাজ্ব আব্দুল হান্নান হান্নু, প্রয়াসের নির্বাহী পরিচালক ও দৈনিক গৌড় বাংলার সম্পাদক হাসিব হোসেন, ভোলাহাট আম ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক মোজাম্মেল হক, শিবগঞ্জ ম্যাংগো এ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ওমর আলী, সেক্রেটারী ইসমাইল হক, রপ্তানীকারক আমিনুজ্জামান বাবু, শিবগঞ্জ উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোঃ আমিনুজ্জামান, কল্যানপুর হর্টিকালচার সেন্টারে উদ্ভিদ বিশেষজ্ঞ মোঃ জহুরুল ইসলাম, অব. অধ্যক্ষ মোঃ সাইদুর রহমান, ফ্রুট ব্যাগ বিক্রেতা ও আম ব্যবসায়ী কাজী সেতাউর রহমান, আম চাষী, আম ব্যবসায়ী, বালাইনাশক বাজারজাতকরণ প্রতিনিধিসহ প্রায় ৪০জন অংশ নেয়। কর্মশালায় আম উৎপাদনের বিভিন্ন কলাকৌশল ও করনীয় নিয়ে আলোচনা হয়। প্রধান অতিথি বলেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জের আমকে দেশে বিদেশে সঠিক সময়ে এবং সঠিকভাবে বাজারজাতকরনের জন্য গত বছর সময় বেঁধে দিয়ে প্রকারভেদে আম পাড়া এবং বাজারজাতকরণ করা হয়েছে। আম, রেশম, কাঁসা, পিতল ও গম্ভিরার জেলা চাঁপাইনবাবগঞ্জ একটি পর্যটন এলাকা হিসেবে যেন গড়ে উঠে, সে লক্ষ্যেও কাজ চলছে। জেলার আমের বিভিন্ন সমস্যা সমাধানে ইতোমধ্যেই সদর উপজেলার মহারাজপুরে আধুনিক আম বাজার নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করা হয়েছে। জেলার শিবগঞ্জ, কানসাটসহ অন্যান্য স্থানেও আধুনিক মানের আম বাজার স্থাপন করারও পরিকল্পনা রয়েছে সরকারের। আগামীতে জেলার আম নিয়ে ৩দিনব্যাপী আম উৎসবের আয়োজনের পরিকল্পনা রয়েছে। সকল আধুনিক প্রক্রিয়ার মাধ্যমে জেলার আমকে অর্থকরী ফসল হিসেবে যেন দেশে এবং বিদেশে স্থান করে নেয়, সে লক্ষ্যেই সকলে মিলে কাজ করার আহবান জানান জেলা প্রশাসক। অন্যান্য বক্তারগণও জেলার আম নিয়ে করণীয় বিষয়ে আলোচনা ও সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *