Sharing is caring!

চাঁপাইনবাবগঞ্জে এলজিএসপি-৩’র কর্মশালা উদ্বোধন

জনগণের চাহিদাকে প্রাধান্য দিয়ে কাজ করবেন

—সরদার সরাফত আলী

♦ স্টাফ রিপোর্টার

ইউনিয়ন পরিষদ হচ্ছে সরকারের সবচেয়ে পুরাতন ও গুরুত্বপূর্ণ একটি প্রতিষ্ঠান। এই প্রতিষ্ঠানকে শক্তিশালী করতে পারলেই, এসডিজি বাস্তবায়ন খুবই সহজ হয়ে যাবে। আর এতে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে হবে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও সচিবদের। মঙ্গলবার সকালে চাঁপাইনবাবগঞ্জে লোকাল গভর্ন্যান্স সাপোর্ট প্রজেক্ট-৩ এর আওতায় প্রকল্প কর্মকান্ড বাস্তবায়ন বিষয়ক জেলা পর্যায়ের দু’দিনের প্রশিক্ষণ কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন, এলজিএসপি-৩ প্রকল্প পরিচালক, যুগ্মসচিব ও চাঁপাইনবাবগঞ্জের সাবেক জেলা প্রশাসক সরদার সরাফত আলী। দুর্নীতিমুক্ত ইউনিয়ন পরিষদ গড়ার আহব্বান জানিয়ে ইউপি চেয়ারম্যান ও সচিবদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, জনগণের চাহিদাকে প্রাধান্য দিয়ে কাজ করবেন। সরকার দেশের প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জন্যই কোটি কোটি টাকা বরাদ্দ দিচ্ছে। এসব অর্থ প্রকৃতভাবে তাদের পেছনেই ব্যয় করবেন। আপনাদের এলকার জনগণ যেটা চাই, সেটাকেই প্রাধান্য দিয়ে কাজ করবেন। জেলা প্রশাসনের আয়োজনে জেলা প্রশাসকের কক্ষে অনুষ্ঠিত কর্মশালায় ইউপি চেয়ারম্যান ও সচিবদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, বিভিন্ন প্রকল্প থেকে আসা অর্থের বেশিরভাগই আপনারা খরচ করে থাকেন, রাস্তাঘাট নির্মাণে। কিন্তু এলাকার চাহিদা মোতাবেক অন্যান্য খাতকেও প্রাধান্য দিতে পারেন। প্রকল্পের কাজের সুুবিধার্থে প্রত্যেক ইউনিয়ন পরিষদে একটি করে কম্পিউটটার দেয়া হবে বলেও জানান তিনি। জেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও সচিবদের নিয়ে অনুষ্ঠিত কর্মশালায় চাঁপাইনবাবগঞ্জে সাবেক জেলা প্রশাসক সরদার সরাফত আলী আরো বলেন, আমরা জানি, চাঁপাইনবাবগঞ্জ আমের রাজধানী হিসেবে খ্যাত। তাই আপনারা স্থানীয় চাহিদার কথা বিবেচনায় ইউনিয়নের একটি নিদিষ্ট স্থানে ম্যাংগো ল্যান্ডিং স্টেশন করতে পারেন। যেখানে ইউনিয়নের সকল আমচাষীরা একটি নিদিষ্ট স্থানে আম কেনাবেচা করতে পারবে। এমনকি ক্ষৃদ্র ব্যবসায়ীরা আম সংরক্ষণও করতে পারবে ম্যাংগো ল্যান্ডিং স্টেশনে। কর্মশালায় সভাপতিত্ব করেন, স্থানীয় সরকার শাখার উপ-পরিচালক ড. চিত্রলেখা নাজনীন। এসময় উপস্থিত ছিলেন, ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক (অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক-সার্বিক) তাজকির-উজ-জামান, জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. আসাদুজ্জামান, নিশাত আনজুম অনন্যাসহ জেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও সচিবগণ। কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এলজিএসপি-৩ প্রকল্প পরিচালক সরদার সরাফত আলী বলেন, স্থানীয় সরকার বিভাগ, বাংলাদেশ সরকার ও বিশ্ব ব্যাংকের যৌথ অর্থায়নে “লোকাল গভর্ন্যান্স সাপোর্ট প্রজেক্ট” (এলজিএসপি-৩) বাস্তবায়িত হচ্ছে। সাংবিধানিক অঙ্গীকার অনুযায়ী সরকার প্রশাসনের সকল পর্যায়ে নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিদের ক্ষমতায়ন ও উন্নয়নে প্রশাসনের কার্যকর অংশগ্রহণ নিশ্চিত করার লক্ষে নিরলস প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। স্থানীয়ভাবে ইউনিয়ন পরিষদ পর্যায়ে পরিকল্পনা প্রণয়ন ও বাস্তবায়নে সকল পর্যায়ের জনঅংশগ্রহণ নিশ্চিত করতেই এলজিএসপি-৩ বিষয়ক সারাদেশের সকল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও সচিবগণদের নিয়ে প্রশিক্ষণ কর্মশালার আয়োজন করা হয়েছে। উল্লেখ্য, বুধবার দুইদিনব্যাপী প্রশিক্ষণ কর্মশালার সমাপনী দিন। মঙ্গলবার বিকেলে শিবগঞ্জেও একই কর্মশালায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, এলজিএসপি-৩ প্রকল্প পরিচালক, যুগ্মসচিব ও চাঁপাইনবাবগঞ্জের সাবেক জেলা প্রশাসক সরদার সরাফত আলী।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *