Sharing is caring!

তুচ্ছ ঘটনায় প্রাণহানি
জেলার শিবগঞ্জে ককটেল বিষ্ফোরণে যুবক নিহত ॥ আটক-৬

♦স্টাফ রিপোর্টার

চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার মরদানায় ককটেল বিস্ফোরণে এক যুবক নিহত হয়েছে। নিহত যুবক, শিবগঞ্জ পৌরসভার ৯নং ওয়ার্ডের মরদানা আইয়ুব বাজার এলাকার মৃত ফজলুর রহমানের ছেলে সাইফুদ্দিন আহমেদ (৩৫)। এ ঘটনায় শিবগঞ্জ থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। শিবগঞ্জ থানা পুলিশ ৬জনকে আটক করেছে। এলাকায় উত্তেজনা ও আতঙ্ক বিরাজ করছে। এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার ১৪ জুলাই রাত প্রায় ৯টার দিকে শিবগঞ্জ পৌরসভার মরদানা গ্রামের আইয়ুব বাজার এলাকায় গরুর ঘাষ খাওয়াকে কেন্দ্র করে মমিন ও কেরামতের গ্রুপের সাথে মারামারি হয় এবং তার কিছুক্ষন পরেই বেশ কিছু ককটেল বিস্ফোরনের ঘটনা ঘটে। এসময় মরদানা গ্রামের আইয়ুব বাজার এলাকার সাইফুদ্দিন আহমেদ(৩৫) গুরুত্বর জখম হয়। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করলে দায়িত্বরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করেন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার দিবাগত রাত সোয়া ১২টার মারা যান সাইফুদ্দিন। শিবগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) মাহবুবুল আলম জানান, শিবগঞ্জ পৌরসভার ৯নং ওয়ার্ডের মরদানা গ্রামের আইয়ুব বাজার এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দু’গ্রুপের মধ্যে কয়েকটি ককটেল বিষ্ফোরণের ঘটনার সংবাদ পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌছে। পুলিশ পৌছানোর আগেই স্থানীয়রা ককটেল বিস্ফেরনে আহত সাইফুদ্দিনকে উদ্ধার করে চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর হাসপাতালে ও পরে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত প্রায় সোয়া ১২টার দিকে মারা যায়। বুধবার সকালে নিহত সাইফুদ্দিনের ভাই মুকুল একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছে। মামলা হয়েছে। এতে ৩৪ জন এজাহার নামীয় এবং ৮-১০ জনকে অজ্ঞাতনামা আসামী করা হয়েছে। কয়েকজনকে আটক করা হয়ছে। এলাকাটি বর্তমানে পলিশের নিয়ন্ত্রনে রয়েছে। কয়েকজনকে আটক করা হয়ছে। ঘটনার তদন্ত চলছে। তবে, বর্তমানে এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় আতঙ্ক বিরাজ করছে বলে জানিয়েছে এলাকাবাসী। উল্লেখ্য, এর আগে এলাকার সালাম ও জেম গ্রুপের সংঘর্ষে একাধিক প্রানহানির ঘটনা ঘটায় বর্তমানে এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় আবারো আতঙ্ক বিরাজ করছে।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *