Sharing is caring!

ঠাকুরগাঁওয়ে ফখরুলের গাড়িবহরে হামলা

করলো মনোনয়ন বঞ্চিত নেতা-কর্মীরা

নিউজ ডেস্ক: আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোনয়ন বাণিজ্যের জের ধরে বিএনপির ক্ষুব্ধ নেতা-কর্মীরা দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের গাড়িবহরে হামলা চালিয়েছে।

১১ ডিসেম্বর (মঙ্গলবার) ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার বেগুনবাড়ি ইউনিয়নের বানারহাট এলাকায় মির্জা ফখরুলের গাড়িবহরে হামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিএনপি চেয়ারপারসনের প্রেস উইং সদস্য শায়রুল কবীর খান। তিনি আরও জানান, এ সময় মহাসচিবের গাড়িবহরের সঙ্গে থাকা বেশ কিছু গাড়ি ভাঙচুর ও নেতাকর্মীদের মারধর করা হয়েছে। জানা গেছে তারা প্রত্যেকেই ঠাকুরগাঁও বিএনপির কর্মী।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঠাকুরগাঁও-১ ও বগুড়া-৬ আসনে থেকে নির্বাচন করছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। নির্বাচনী প্রচারণার অংশ হিসেবে আজ (মঙ্গলবার) তিনি ঠাকুরগাঁওয়ে গণসংযোগে যান। সূত্র বলছে, ১০ ডিসেম্বর বিকেলে গুলশানে চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আমি মঙ্গলবার ঠাকুরগাঁও যাব। সেখানে ভোটের প্রচারে অংশ নেব। এরপর বগুড়াও যাব। দুইদিন থেকে ঢাকায় ফিরে আসব।’ মির্জা ফখরুলের এমন ঘোষণাকে টার্গেট করেই পূর্বপ্রস্তুতি নিয়ে বিক্ষুব্ধ নেতারা এমন কাণ্ড ঘটিয়েছে।

ঘটনাস্থলে উপস্থিত থাকা প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মির্জা ফখরুলের গাড়িবহরটি ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার বেগুনবাড়ি ইউনিয়নের বানারহাট এলাকায় পৌঁছানোর পরেই, ‘দালাল ফখরুল’, ‘চোর ফখরুল’ বলে স্লোগান দিতে দিতে গাড়িবহরে হামলা চালায় বিক্ষুব্ধ কর্মীরা। এসময় তারেক রহমানসহ দলের শীর্ষ নেতাদের নামে গালগালাজও করে তারা।

প্রসঙ্গত, মনোনয়ন বাণিজ্যের অভিযোগে এর আগেও মির্জা ফখরুল ইসলামের উপরে হামলা চালায় দেলের মনোনয়ন বঞ্চিত নেতাদের সমর্থকরা। এমনকি বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার গুলশান কার্যালয় পর্যন্ত ঘেরাও, ভাঙচুর চালানো হয়। এমন প্রেক্ষাপটে ভেঙ্গে পড়েছে বিএনপির দলীয় অবকাঠামো। দলের কোন নেতাকেই আর বিশ্বাস করছে না তৃণমূল বিএনপি। তারই ধারাবাহিকতায় পুনরায় দলীয় কর্মীদের রোষানলে পড়তে হলো দলটির মহাসচিবকে।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *