Sharing is caring!

প্রেস বিজ্ঞপ্তি \ রাজশাহীর দুর্গাপুরে অবৈধভাবে জমি দখল ও প্রাণনাশের হুমকির মধ্যে রয়েছে একটি পরিবার। রবিবার দুপুরে রাজশাহীর মেট্রোপলিটন প্রেসক্লাবে ভুক্তভুগির পরিবার সংবাদ সম্মেলনে এ অভিযোগ করেন। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে পাঠ করেন ভুক্তভোগি আফসার আলী জোয়ার্দার। লিখিত বক্তব্যে তিনি উল্লেখ করেন, দুর্গাপুর থানা পুলিশের যোগসাজসে আফসার আলী জোয়ার্দার ও তার পরিবারের সদস্যদের বিরুদ্ধে একই গ্রামের সন্ত্রাসী কবেজ আলী মিথ্যা ও হয়রানিমূলক মামলা দায়ের করেন। ২০১৬ সালের ১২ জুলাই আসামি কবেজ আলীসহ তার সন্ত্রাসী বাহিনী হত্যার উদ্দেশ্যে আমাকে আক্রমণ করে একটি কান, তিনটি আঙ্গুল, চারটি দাঁত, হাতের কবজিসহ মাথায় গুরুত্বর ১০টি জখম করে মৃত্যু নিশ্চিত হয়েছে জেনে ফেলে রেখে চলে যায়। পরে ঘটনাস্থল থেকে স্থানীয় এলাকাবাসি আমাকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন। পরবর্তিতে আমার অবস্থার অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় প্রেরণ করা হয়। ঢাকায় দীর্ঘদিন চিকিৎসা শেষে বাড়ি ফিরে আসি। বর্তমানে আমি শারিরীক ভাবে অসুস্থ। লিখিত বক্তব্যে তিনি আরও উল্লেখ করেন, উন্নত চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরে আসার পর আসামিরা আমাকে এবং আমার পরিবারের সদস্যদের বিভিন্নভাবে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি-ধামকি দিয়ে আসছে। বিষয়টি স্থানীয় থানায় জানালেও পুলিশ কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করেনি। তিনি অভিযোগ করেন, উল্টো পুলিশ আমাকে সহযোগিতা না করে আসামিদের পক্ষ নিয়ে আমাকে হয়রানির মধ্যে ফেলছে। আমি পরিবার পরিজন নিয়ে চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। অপরদিকে থানা পুলিশের সহযোগিতায় আসামী কবেজ আলীসহ সন্ত্রাসী লোকজন নিয়ে আমার জমির উঠতি ফসল ও বাঁশ ঝাড়ের বাঁশ দিবালোকে কেটে নিয়ে যায়। স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও থানা পুলিশের সহযোগিতা না পাওয়ায় আমার ঘর-বাড়ি ও সকল প্রকার স্বত্ব দখলীয় সম্পত্তি বেদখল হওয়ার ভয়ে আমি এখন পরিবারের সকল সদস্যদের নিয়ে চরম নিরাপত্তায় ভুগছি। সংবাদ সম্মেলনের আফসার আলী জোয়ার্দার এ অবস্থা থেকে বাঁচার জন্য স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও প্রশাসনের সহযোগিতা কামনা করেন। সংবাদ সম্মেলনে তার কন্যাসহ পরিবারের অন্যন্যে সদস্যবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *