Sharing is caring!

নাচোল প্রতিনিধি \ নাচোলের সাঁওতাল স¤প্রদায়ের দিনমজুর ও হতদরিদ্র লাল টুডুর মেয়ে ও রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজকর্ম বিভাগের মেধাবী শিক্ষার্থী ছায়া দেবী প্রায় ৪ বছর ধরে থেকে মানসিক রোগে ভূগছেন। মেধাবী এই শিক্ষার্থীর উন্নত চিকিৎসার জন্য অনেক অর্থের প্রয়োজন। হতদরিদ্র হয়ে লাল টুডু মেয়ের পড়াশোনা চালিয়ে যাচ্ছিলেন। কিন্তু দূর্ভাগ্যবসত তাঁর মেধাবী শিক্ষার্থী ছায়া দেবী বর্তমানে মানসিক রোগে ভূগছেন। বিভিন্ন জায়গায় চিকিৎসা করাতে হিমশিম খাচ্ছেন এই হতদরিদ্র পিতা লালু টুডু। তাই তিনি সমাজের বিত্তবান ব্যক্তির কাছে সাহায্যের আবেদন করেছেন। মেধাবী এই শিক্ষার্থীর চিকিৎসার জন্য প্রায় ৩ লাখ টাকা প্রয়োজন। এমনই সংবাদ পেয়ে সাহায্যে হাত বাড়িয়েছে এশিয়ান স্কুল এন্ড কলেজ। শনিবার বেলা সাড়ে ১১টায় অত্র শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষ ইশাহাক আলী হতদরিদ্র লাল টুডুর হাতে মেয়ের চিকিৎসার সেবার জন্য তুলে দেন ১১ হাজার ৬৭০ টাকা। এসময় উপস্থিত ছিলেন নেজামপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান শ্রী নিতাই চন্দ্র বর্মন, এশিয়ান স্কুল এন্ড কলেজের প্রভাষক শাকিল রেজা, নাচোল সাংবাদিক অ্যাসোসিয়েশনের আহবায়ক নুরুল ইসলাম বাবু ও সাংবাদিক মনিরুল ইসলামসহ অন্যরা। পাশাপাশি আর্থিক সহায়তা করেছেন পাঠশালা স্কুল এন্ড কলেজ, বেগম মসসিন ফাজিল মাদ্রাসাসহ বেশ কিছু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। মেধাবী এই শিক্ষার্থীকে ¯^াভাবিক জীবনে ফিরিয়ে আনতে সবার সহযোগিতা প্রয়োজন বলে মনে করছেন এই সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। কোন বিত্তবান ব্যক্তি যদি সহায়তা পাঠাতে চান, তাহলে ০১৭১৯১০৫৪৮৯-এই নম্বরে বিকাশের মাধ্যমে পাঠাতে পারেন বলেন নিশ্চিত করেছেন নাচোল উপজেলার নেজামপুর ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান শ্রী নিতাই চন্দ্র বর্মন।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *