Sharing is caring!

নাচোল প্রতিনিধি \ চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে মাদ্রাসা পড়ুয়া দুই শিশুকে অপহরণ করা হয়েছে। অপহৃত দুই শিশু হলোÑফতেপুর ইউনিয়নের আলী সাহাপুর গ্রামের কাজী নজরুল ইসলামের ছেলে শাহাদাৎ (১২) ও একই গ্রামের সিরাজুল ইসলামের ছেলে ওসমান (১৩)। ঘটনাটি ঘটে গত শুক্রবার। এর মধ্যে অপহরণকারীদের হাত থেকে শাহাদাৎ পালিয়ে বাড়ি ফিরতে সক্ষম হয়েছে। অপহরণকারীরা আত্মীয়তার সম্পর্ক স্থাপন করে এঘটনা ঘটিয়েছে বলে জানা গেছে। নাচোল থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) ফাছিরুদ্দিন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন। জানা গেছে, চার মাস আগে নাচোলের একটি ফার্মেসিতে ওষুধ কিনতে গিয়ে কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা উপজেলার রাজু নামে এক ব্যক্তির সঙ্গে পরিচয় হয় শাহাদাতের। পরিচয়ের সূত্র ধরে শাহাদাতের কাছে তার বাড়ির ফোন নম্বর নেয় রাজু। তারপর থেকে প্রায়ই শাহাদাতের বাড়িতে ০১৭৩৩৬৮২৭৩০ নম্বর থেকে ফোন দিয়ে খোঁজ খবর নিত রাজু। গত দেড় মাস আগেও শাহাদাতের বাড়িতে এক রাত থেকে যায় সে। সর্বশেষ গত শুক্রবার সকালে শাহাদাতের বাড়িতে ফোন দিলে শাহাদাতই ফোনটি ধরে। অপর প্রান্তে থাকা রাজু জানায়, সে নাচোল এসেছে এবং শাহাদাতের সঙ্গে দেখা করতে চায়। রাজু দেখা করার জন্য শাহদাতকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ-গোমস্তাপুর সড়কের খলসি নামক স্থানে যেতে বলে। সরলমনা শাহাদাত তার বন্ধু একই গ্রাম আলী সাহাপুরের ওসমানকে সঙ্গে নিয়ে খলসি যাওয়া মাত্রই কৌশলে শাহাদাত ও ওসমানকে মাইক্রোবাসে উঠিয়ে জোরপূর্বক তাদের নিয়ে ঈশ্বরদী চলে যায়। এরপর রাজু শাহাদাতের বাড়িতে ফোন করে মুক্তিপণ দাবি করে। এদিকে অপহৃত শাহাদাত টয়লেট সারার নাম করে অপহরণকারীদের খপ্পর থেকে পালিয়ে এসে ঈশ্বরদী স্টেশনে গিয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জগামী ট্রেনে উঠে পড়ে। শনিবার ভোর ৩টার সময় সে আমনুরা পৌঁছে বাড়িতে ফোন দেয় এবং পুরো ঘটনা জানায়। এ ঘটনায় ওসমানের বাবা নাচোল থানায় একটি অপহরণ মামলা দায়ের করেছে।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *