Sharing is caring!

ভোলাহাট প্রতিনিধি\ জেলার ভোলাহাটে শিশু ধর্ষণের অভিযোেেগ ধর্ষকসহ ২জনকে আটক করেছে ভোলাহাট থানা পুলিশ। আটককৃতরা হলো- উপজেলার মুন্সিগঞ্জ গ্রামের ফারুকের ছেলে রুবেল(২৩) ও ভাদুর ছেলে আমিন(১৯)। পুলিশ ও সরজমিন গিয়ে জানা যায়, শুক্রবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার ভোলাহাট উপজেলার মুন্সিগঞ্জ গ্রামের গুজর ঘাটের মুক্তিযোদ্ধা শামশুদ্দিনের মুলা ক্ষেতের পাশে বাঁশ ঝাড়ে একই গ্রামের কেজি স্কুলে পড়ুয়া ৩জন শিশু খেলতে থাকে। এমন সময় মুন্সিগঞ্জ গ্রামের রুবেল, আমিন ও আলীসাহাসপুর গ্রামের মৃতঃ টিপুর ছেলে আলমগীর(২২) এ ৩ শিশুর কাছে গিয়ে বিরক্ত করতে থাকে। তাদের উপর বিরক্ত হয়ে ২জন শিশু ঘটনাস্থল থেকে অন্যত্রে সরে গেলে বাবুলের ৫ বছরের শিশু কন্যাকে রুবেল ধর্ষণ করে এবং বাঁকী ২জন পাশে থেকে সহযোগিতা করে। ধর্ষণের সময় শিশুটি চিৎকার করলে চলে যাওয়া শিশু ২জন আবার ফিরে ঘটনাস্থলে। সেখানে শিশুটির রক্তাক্ত অবস্থা দেখে তাদের বাড়ীতে খবর দেয়। তাৎক্ষণিক বাড়ীর লোকজন ঘটনাস্থলে ছুটে গিয়ে ধর্ষক রুবেল ও সহযোগি আমিনকে ধরে ফেলে। অপর জন আলমগীর পালিয়ে যায়। বিষয়টি থানায় পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে ধর্ষক ও সহযোগিকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে যায়। শিশুটির অবস্থা বেগতিক হলে ভোলাহাট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা করার জন্য নিয়ে যায়। চিকিৎসক প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন বলে দায়িত্বরত চিকিৎসক জানান। এ ব্যাপারে ভোলাহাট থানার অফিসার ইনচার্জ ফাছির উদ্দীনের জানান, এ ঘটনায় শিশুটির বাবা বাবুল বাদি হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করে। মামলা রজু করা হয়েছে। ধর্ষকসহ ১ সহযোগিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অপর এক সহযোগি পলাতক রয়েছে। তাকেও দ্রুত গ্রেফতার করা হবে বলে জানান।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *