Sharing is caring!

up-pollশিবগঞ্জ প্রতিনিধি \ চাঁপাইনবাবগঞ্জে শিবগঞ্জ উপজেলার ১৪টি ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ১৯জন প্রার্থীর জামানত বায়েজাপ্ত হয়েছে। এর মধ্যে পাঁকা ইউনিয়নে তিনজন, দাইপুখুরিয়া ইউনিয়নে ৫ জন, মোবারকপুর ইউনিয়নে ২ জন, চককীর্ত্তি ইউনিয়নে একজন, শ্যামপুর ইউনিয়নে একজন, দূর্লভপুর ইউনিয়নে তিনজন, মনাকষা ইউনিয়নে একজন, ধাইনগর ইউনিয়নে দুইজন ও ছত্রাজিতপুর ইউনিয়নে একজনের জামানত বায়েজাপ্ত হয়। এরা হলেন সাদিকুল ইসলাম (ঘোড়া) প্রতীকে ভোট পান ১ হাজার ১১০টি, তরিকুল ইসলাম (মটর সাইকেল) প্রতীকে ভোট পান ১৮টি, ইসমাইল হোসেন (নৌকা) প্রতীকে ভোট পান ১ হাজার ১৮৫টি। দাইপুখুরিয়া ইউনিয়নে ৫জনের জামানত বায়েজাপ্ত হয়েছে। এরা হলেন, মাইনুল ইসলাম (ঘোড়া) প্রতীকে ২ হাজার ১৭৩টি, কুল¬ুর রহমান (মশাল) প্রতীকে ৭৮টি, আফাজুদ্দিন (মটর সাইকেল) প্রতীকে ৩৯৮টি, হাকিম আল ইসলাম (দুটি পাতা) ৩৮৫টি, আলোমগীর (নৌকা) প্রতীকে ২ হাজার ৪৮২টি ভোট পান। মোবারকপুর ইউনিয়নে দুইজনের জামানত বায়েডাপ্ত হয়েছে। এরা হলেন, ময়জুল ইসলাম (মশাল) প্রতীকে ভোট পান ৯৭টি, আবদুল মান্নান (আনারস) প্রতীকে ভোট পান ৮৬টি। চককীর্ত্তি ইউনিয়নে একজনের জামানত বায়েজাপ্ত হয়েছে। অন্তর আলী শামীম(লাঙ্গল) প্রতীকে তিনি ১১২টি ভোট পান। শ্যামপুর ইউনিয়নে একজন। নওয়াব মোহাম্মদ শামশুল হোদা (অটোরিক্সা) প্রতীকে তিনি ১৩২টি ভোট পান। দূর্লভপুর ইউনিয়নে তিনজনের জামানত বায়েজাপ্ত হয়েছে। এরা হলেন, বজলার রশিদ সোনু(আনারস) প্রতীকে ভোট পান ৭০৭টি, মোশাফর হোসেন(ধানের শীষ) প্রতীকে ভোট পান ৩ হাজার ২৩৪টি, কামাল উদ্দিন (ঘোড়া) প্রতীকে ভোট পান ২ হাজার ৭৯৬টি। মনাকষা ইউনিয়নে একজন। নাজমুল আলম উজ্জল (আনারস) প্রতীকে তিনি ৪৩২টি ভোট পান। ধাইনগর ইউনিয়নে দুইজনের জামানত বায়েজাপ্ত হয়েছে। এরা হলেন, জুয়েল আলী (লাঙ্গল) প্রতীকে ভোট পান ১০৬টি, আতাউর রহমান (শাহআলম) (আনারস) প্রতীকে ভোট পান ১ হাজার ৪৭টি। ছত্রাজিতপুর ইউনিয়নে একজন। আল মোতাশিম বিল¬াহ (চশমা) প্রতীকে তিনি ৬৫টি ভোট পান।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *