Sharing is caring!

shibganj-pic-01-07-01-2017শিবগঞ্জ প্রতিনিধি \ জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার বিল-ভাতিয়া হতে কানসাট ফাঁসিতলা শাখা নদী (দাঁড়া)র পানি সেচের মাধ্যমে মাছ নিধন বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন করেছে মোবারকপুর ও দাইপুখুরিয়া ইউনিয়নবাসি। শনিবার বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে মোবারকপুর ইউনিয়নের ধুমারিনগর ধুমপাড়ায় এই দুই ইউনিয়নের প্রায় শতাধিক পরিবারের নারী-পুরুষ মানববন্ধনে অংশ নেয়। মানববন্ধন চলাকালে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন দাইপুখুরিয়া ইউনিয়ন শাখা মানবাধিকার সংস্থার সদস্য মোঃ কুল্লুর রহমান, অত্র ইউনিয়নবাসির পক্ষে তাজামুল হক, কুলসুম বেগম, মোবারকপুর ইউনিয়নবাসির পক্ষে বাবুল হোসেন, আনেম আলী মন্ডল, সেতারা বেগমসহ অন্যরা। সমাবেশে বক্তারা বলেন, দীর্ঘদিন থেকে এই দাঁড়া দিয়ে পানি প্রবাহিত হয়ে আসছে। ফলে বিল-ভাতিয়া হতে কানসাট ফাঁসিতলা পর্যন্ত এর আশেপাশের এলাকাবাসি এই দাঁড়ার পানি পরিবারের বিভিন্ন কাজে ব্যবহার করে আসছে। কিন্তু গত ২০ ডিসেম্বর হতে অধ্যবদি মোবারকপুর ইউনিয়নের নামোটিকোরী গ্রামের আবেদ আলী ছেলে শফিকুল ইসলাম, একই এলাকার মৃত লুথু মন্ডলের ছেলে মুকলেশ আলী, ধুমারী নগর দিং আড়গাড়ার মৃত আহসানের ছেলে তাজামুল হক, লাধু মন্ডলের ছেলে জেনারুল ইসলাম, সেকান্দারের ছেলে আবদুল মান্নানসহ বেশ কয়েকজন এই দাঁড়ার মাঝামাঝিতে মাটি ভরাট করে বাঁধ সৃষ্টি করে শ্যালো মেশিন দিয়ে পানি সেচ করে সমস্ত মাছ ধরতে মরিয়া হয়ে উঠেছে। এছাড়া নদী এবং নদীর শাখা (দাঁড়া)তে মাটি ভরাট করে বাঁধ সৃষ্টি করে পানি শ্যালো মেশিন দিয়ে পানি সেচ করে শুস্ক করাও আইনগত অপরাধ। বক্তারা আরো বলেন, শুধু পরিবারের সমস্যা নয় এটি। এটি দেশেরও বড় সমস্যা। কারণ, পানি সেচ করে সমস্ত মাছ নিধন করছে তারা। আমরা এ মাছ ধরা বন্ধের জোর দাবি জানাচ্ছি। উল্লেখ্য, ইতিপূর্বে দাঁড়াতে মাটি ভরাট করে বাঁধ সৃষ্টির মাধ্যমে শ্যালো মেশিন দিয়ে পানি সেচের মাধ্যমে মাছ ধরা বন্ধের দাবিতে জেলা প্রশাসক বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছে এলাকাবাসি।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *