Sharing is caring!

জেলা আ.লীগের বর্ধিত সভা

নেতা-কর্মীরা ঐক্যবদ্ধ হলে চাঁপাইনবাবগঞ্জে বিএনপি-

জামায়াতের অস্তিত্ব থাকবে না : জাহাঙ্গীর কবির নানক

রাজনীতিতে চাঁপাইনবাবগঞ্জ একটি গুরুত্বপূর্ণ স্থান। এই জেলায় যেমন রয়েছে আওয়ামীলীগের নিষ্ঠাবান কর্মীবাহিনী, অন্যদিকে আছে স্বাধীনতাবিরোধী বিএনপি-জামায়াত শক্তি। তবে আওয়ামীলীগের নেতা-কর্মীরা ঐক্যবদ্ধ হলে চাঁপাইনবাবগঞ্জে বিএনপি-জামায়াতের কোন অস্তিত্ব থাকবে না। শুক্রবার বিকেলে চাঁপাইনবাবগঞ্জে জেলা আ.লীগের বর্ধিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক মন্ত্রী জাহাঙ্গীর কবির নানক। জেলা শিল্পকলা একাডেমী মিলনায়তনে সভায় তিনি আরো বলেন, আমি বিশ্বাস করি চাঁপাইনবাবগঞ্জে বিএনপি-জামায়াত কোন বৃহৎ শক্তি নয়। এমনকি তারা আমাদের সাথে শক্তিমক্তাতেও অনেক পিছিয়ে। তবে এই জেলায় আ.লীগই আ.লীগের শত্রু। যার কারনেই বারবার বিভিন্ন নির্বাচনে আ.লীগের জয় আসছে না। দলীয় নেতাকর্মীদের মধ্যে নিজেদের সম্পর্ক উন্নয়নে কাজ করার আহব্বান জানিয়ে তিনি বলেন, সদ্য অনুষ্ঠিত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চাঁপাইনবাবগঞ্জে নৌকার ভরাডুবি হয়েছে। সারাদেশে যেখানে আ.লীগের জয়জয়কার, কিন্তু দুর্ভাগের বিষয় এখানে ফলাফল তার উল্টো। এই ফলাফলে আ.লীগের সভানেত্রীর কাছে আমরা ভীষণভাবে লজ্জিত হয়েছি, আমাদের মাথা হেট হয়েছে। হত্যা, গুম, খুন, সন্ত্রাসের দেশ বাংলাদেশ নয়, এদেশ শান্তি, সমৃদ্বী ও সম্ভাবনার উল্লেখ করে জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলেছে আমাদের স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ। দেশ এই মূহুর্তে খাদ্যে স্বয়ংসম্পন্নতা অর্জন করেছে। বর্তমান সরকার দেশের অবহেলিত ও পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর জন্য বয়স্ক ভাতা, শিক্ষাবৃত্তি প্রদান, স্বামী পরিত্যাক্তা ভাতা, প্রতিবন্ধী ভাতাসহ বিভিন্ন সুবিধা প্রদান করছে। সরকার নারী ক্ষমতায়নে গুরুত্ব দিয়ে কাজ করছে। দলের নেতাকর্মীদের প্রতি এসব বিষয়গুলো বেশি করে প্রচার করার আহব্বান জানান তিনি। মর্জা ফখরুলের বক্তব্যের জের ধরে নানক বলেন, বিএনপির মহাসচিব আজকে বলেছেন আওয়ামীলীগ সরকারের নাকি পতন খুব শীগ্রই হবে। এটি বাস্তবে নয়, তিনি স্বপ্নে দেখেছেন। কারন এদেশের মানুষ জানে কারা ক্ষমতায় আসলে দেশের উন্নয়ন হয়, আর কারা থাকলে দেশে গুম, খুন, হত্যা বেড়ে যায়।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে সাবেক মন্ত্রী বলেন, আজকের সভায় সিধান্ত হয়, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের জেলা সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২৬ নভেম্বর। এর আগে ২০ নভেম্বরের মধ্যে উপজেলা, ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায়ের সম্মেলন সম্পন্ন করতে হবে।
জেলা আ.লীগের বর্ধিত সভায় প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন, আওয়ামীলীগের সাংগাঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী এমপি। সভার বিশেষ অতিথি ছিলেন, আ.লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য প্রফেসর ড. সাইদুর রহমান খান, স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক ডা. রোকেয়া সুলতানা, আ.লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য নুরুল ইসলাম ঠান্ডু, প্রফেসর মেরিনা জাহান। জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব মো. মইনুদ্দীন মন্ডলের সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন, জেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য আব্দুল ওদুদ, চাঁপাইনবাবগঞ্জ-১ আসনের সংসদ সদস্য ডা. শামিল উদ্দীন আহমেদ শিমুল, সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য ফেরদৌসী ইসলাম জেসী, চাঁপাইনবাবগঞ্জের সাবেক এমপি বিগ্রেডিয়ার এনামুল হক, মুহা. জিয়াউর রহমান, গোলাম মোস্তফা, জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব রুহুল আমিন, রাজশাহী মহানগর আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকারসহ বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা শাখা কমিটির সদস্যবৃন্দ, উপজেলা, পৌর ও ইউনিয়ন আওয়ামীগ ও এর সহযোগী সংগঠনসমূহের নেতৃবৃন্দ। সভার শুরুতেই উপজেলা পর্যায়ের বিভিন্ন নেতাকর্মীরা অতিথিবৃন্দের উদ্দেশ্য করে দলের কার্যক্রম নিয়ে বিভিন্ন সমস্যা ও তা থেকে উত্তোরনের বিষয়ে কথা বলেন।

আপনার মতামত লিখুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *